63.সুরাহ আল মুনাফিকুন(01-11)


ﺑِﺴﻢِ ﺍﻟﻠَّﻪِ ﺍﻟﺮَّﺣﻤٰﻦِ ﺍﻟﺮَّﺣﻴﻢِ – শুরু
করছি আল্লাহর নামে যিনি পরম
করুণাময়, অতি দয়ালু
[1] ﺇِﺫﺍ ﺟﺎﺀَﻙَ ﺍﻟﻤُﻨٰﻔِﻘﻮﻥَ ﻗﺎﻟﻮﺍ
ﻧَﺸﻬَﺪُ ﺇِﻧَّﻚَ ﻟَﺮَﺳﻮﻝُ ﺍﻟﻠَّﻪِ ۗ
ﻭَﺍﻟﻠَّﻪُ ﻳَﻌﻠَﻢُ ﺇِﻧَّﻚَ ﻟَﺮَﺳﻮﻟُﻪُ
ﻭَﺍﻟﻠَّﻪُ ﻳَﺸﻬَﺪُ ﺇِﻥَّ ﺍﻟﻤُﻨٰﻔِﻘﻴﻦَ
ﻟَﻜٰﺬِﺑﻮﻥَ
[1] মুনাফিকরা আপনার কাছে এসে
বলেঃ আমরা সাক্ষ্য দিচ্ছি যে আপনি
নিশ্চয়ই আল্লাহর রসূল। আল্লাহ জানেন
যে, আপনি অবশ্যই আল্লাহর রসূল এবং
আল্লাহ সাক্ষ্য দিচ্ছেন যে,
মুনাফিকরা অবশ্যই মিথ্যাবাদী।
[1] When the hypocrites come to you (O
Muhammad SAW), they say: “We bear
witness that you are indeed the
Messenger of Allâh.” Allâh knows that
you are indeed His Messenger and Allâh
bears witness that the hypocrites are
liars indeed.
[2] ﺍﺗَّﺨَﺬﻭﺍ ﺃَﻳﻤٰﻨَﻬُﻢ ﺟُﻨَّﺔً
ﻓَﺼَﺪّﻭﺍ ﻋَﻦ ﺳَﺒﻴﻞِ ﺍﻟﻠَّﻪِ ۚ ﺇِﻧَّﻬُﻢ
ﺳﺎﺀَ ﻣﺎ ﻛﺎﻧﻮﺍ ﻳَﻌﻤَﻠﻮﻥَ
[2] তারা তাদের শপথসমূহকে ঢালরূপে
ব্যবহার করে। অতঃপর তারা আল্লাহর
পথে বাধা সৃষ্টি করে। তারা যা করছে,
তা খুবই মন্দ।
[2] They have made their oaths a screen
(for their hypocrisy). Thus they hinder
(men) from the Path of Allâh. Verily, evil
is what they used to do.
[3] ﺫٰﻟِﻚَ ﺑِﺄَﻧَّﻬُﻢ ﺀﺍﻣَﻨﻮﺍ ﺛُﻢَّ
ﻛَﻔَﺮﻭﺍ ﻓَﻄُﺒِﻊَ ﻋَﻠﻰٰ ﻗُﻠﻮﺑِﻬِﻢ
ﻓَﻬُﻢ ﻻ ﻳَﻔﻘَﻬﻮﻥَ
[3] এটা এজন্য যে, তারা বিশ্বাস করার
পর পুনরায় কাফের হয়েছে। ফলে তাদের
অন্তরে মোহর মেরে দেয়া হয়েছে।
অতএব তারা বুঝে না।
[3] That is because they believed, then
disbelieved, therefore their hearts are
sealed, so they understand not.
[4] ۞ ﻭَﺇِﺫﺍ ﺭَﺃَﻳﺘَﻬُﻢ ﺗُﻌﺠِﺒُﻚَ
ﺃَﺟﺴﺎﻣُﻬُﻢ ۖ ﻭَﺇِﻥ ﻳَﻘﻮﻟﻮﺍ
ﺗَﺴﻤَﻊ ﻟِﻘَﻮﻟِﻬِﻢ ۖ ﻛَﺄَﻧَّﻬُﻢ ﺧُﺸُﺐٌ
ﻣُﺴَﻨَّﺪَﺓٌ ۖ ﻳَﺤﺴَﺒﻮﻥَ ﻛُﻞَّ
ﺻَﻴﺤَﺔٍ ﻋَﻠَﻴﻬِﻢ ۚ ﻫُﻢُ ﺍﻟﻌَﺪُﻭُّ
ﻓَﺎﺣﺬَﺭﻫُﻢ ۚ ﻗٰﺘَﻠَﻬُﻢُ ﺍﻟﻠَّﻪُ ۖ ﺃَﻧّﻰٰ
ﻳُﺆﻓَﻜﻮﻥَ
[4] আপনি যখন তাদেরকে দেখেন, তখন
তাদের দেহাবয়ব আপনার কাছে
প্রীতিকর মনে হয়। আর যদি তারা কথা
বলে, তবে আপনি তাদের কথা শুনেন।
তারা প্রাচীরে ঠেকানো কাঠসদৃশ্য।
প্রত্যেক শোরগোলকে তারা
নিজেদের বিরুদ্ধে মনে করে। তারাই
শত্রু, অতএব তাদের সম্পর্কে সতর্ক
হোন। ধ্বংস করুন আল্লাহ তাদেরকে।
তারা কোথায় বিভ্রান্ত হচ্ছে ?
[4] And when you look at them, their
bodies please you; and when they speak,
you listen to their words. They are as
blocks of wood propped up. They think
that every cry is against them. They are
the enemies, so beware of them. May
Allâh curse them! How are they denying
(or deviating from) the Right Path?
[5] ﻭَﺇِﺫﺍ ﻗﻴﻞَ ﻟَﻬُﻢ ﺗَﻌﺎﻟَﻮﺍ
ﻳَﺴﺘَﻐﻔِﺮ ﻟَﻜُﻢ ﺭَﺳﻮﻝُ ﺍﻟﻠَّﻪِ
ﻟَﻮَّﻭﺍ ﺭُﺀﻭﺳَﻬُﻢ ﻭَﺭَﺃَﻳﺘَﻬُﻢ
ﻳَﺼُﺪّﻭﻥَ ﻭَﻫُﻢ ﻣُﺴﺘَﻜﺒِﺮﻭﻥَ
[5] যখন তাদেরকে বলা হয়ঃ তোমরা
এস, আল্লাহর রসূল তোমাদের জন্য
ক্ষমাপ্রার্থনা করবেন, তখন তারা
মাথা ঘুরিয়ে নেয় এবং আপনি
তাদেরকে দেখেন যে, তারা অহংকার
করে মুখ ফিরিয়ে নেয়।
[5] And when it is said to them: “Come,
so that the Messenger of Allâh may ask
forgiveness from Allâh for you”, they
twist their heads, and you would see
them turning away their faces in pride.
[6] ﺳَﻮﺍﺀٌ ﻋَﻠَﻴﻬِﻢ ﺃَﺳﺘَﻐﻔَﺮﺕَ
ﻟَﻬُﻢ ﺃَﻡ ﻟَﻢ ﺗَﺴﺘَﻐﻔِﺮ ﻟَﻬُﻢ ﻟَﻦ
ﻳَﻐﻔِﺮَ ﺍﻟﻠَّﻪُ ﻟَﻬُﻢ ۚ ﺇِﻥَّ ﺍﻟﻠَّﻪَ ﻻ
ﻳَﻬﺪِﻯ ﺍﻟﻘَﻮﻡَ ﺍﻟﻔٰﺴِﻘﻴﻦَ
[6] আপনি তাদের জন্যে ক্ষমাপ্রার্থনা
করুন অথবা না করুন, উভয়ই সমান।
আল্লাহ কখনও তাদেরকে ক্ষমা করবেন
না। আল্লাহ পাপাচারী সম্প্রদায়কে
পথপ্রদর্শন করেন না।
[6] It is equal to them whether you
(Muhammad SAW) ask forgiveness or ask
not forgiveness for them. Verily, Allâh
guides not the people who are the
Fâsiqîn (the rebellious, the disobedient
to Allâh)
[7] ﻫُﻢُ ﺍﻟَّﺬﻳﻦَ ﻳَﻘﻮﻟﻮﻥَ ﻻ
ﺗُﻨﻔِﻘﻮﺍ ﻋَﻠﻰٰ ﻣَﻦ ﻋِﻨﺪَ ﺭَﺳﻮﻝِ
ﺍﻟﻠَّﻪِ ﺣَﺘّﻰٰ ﻳَﻨﻔَﻀّﻮﺍ ۗ ﻭَﻟِﻠَّﻪِ
ﺧَﺰﺍﺋِﻦُ ﺍﻟﺴَّﻤٰﻮٰﺕِ ﻭَﺍﻷَﺭﺽِ
ﻭَﻟٰﻜِﻦَّ ﺍﻟﻤُﻨٰﻔِﻘﻴﻦَ ﻻ ﻳَﻔﻘَﻬﻮﻥَ
[7] তারাই বলেঃ আল্লাহর রাসূলের
সাহচর্যে যারা আছে তাদের জন্যে
ব্যয় করো না। পরিণামে তারা আপনা-
আপনি সরে যাবে। ভূ ও নভোমন্ডলের
ধন-ভান্ডার আল্লাহরই কিন্তু
মুনাফিকরা তা বোঝে না।
[7] They are the ones who say: “Spend
not on those who are with Allâh’s
Messenger, until they desert him.” And to
Allâh belong the treasures of the heavens
and the earth, but the hypocrites
comprehend not.
[8] ﻳَﻘﻮﻟﻮﻥَ ﻟَﺌِﻦ ﺭَﺟَﻌﻨﺎ ﺇِﻟَﻰ
ﺍﻟﻤَﺪﻳﻨَﺔِ ﻟَﻴُﺨﺮِﺟَﻦَّ ﺍﻷَﻋَﺰُّ ﻣِﻨﻬَﺎ
ﺍﻷَﺫَﻝَّ ۚ ﻭَﻟِﻠَّﻪِ ﺍﻟﻌِﺰَّﺓُ ﻭَﻟِﺮَﺳﻮﻟِﻪِ
ﻭَﻟِﻠﻤُﺆﻣِﻨﻴﻦَ ﻭَﻟٰﻜِﻦَّ ﺍﻟﻤُﻨٰﻔِﻘﻴﻦَ
ﻻ ﻳَﻌﻠَﻤﻮﻥَ
[8] তারাই বলেঃ আমরা যদি মদীনায়
প্রত্যাবর্তন করি তবে সেখান থেকে
সবল অবশ্যই দুর্বলকে বহিস্কৃত করবে।
শক্তি তো আল্লাহ তাঁর রসূল ও
মুমিনদেরই কিন্তু মুনাফিকরা তা জানে
না।
[8] They (hyprocrites) say: “If we return
to Al-Madinah, indeed the more
honourable (‘Abdûllah bin Ubai bin
Salul, the chief of hyprocrites at
Al¬Madinah) will expel therefrom the
meaner (i.e. Allâh’s Messenger SAW).”
But honour, power and glory belong to
Allâh, and to His Messenger (Muhammad
SAW), and to the believers, but the
hypocrites know not.
[9] ﻳٰﺄَﻳُّﻬَﺎ ﺍﻟَّﺬﻳﻦَ ﺀﺍﻣَﻨﻮﺍ ﻻ
ﺗُﻠﻬِﻜُﻢ ﺃَﻣﻮٰﻟُﻜُﻢ ﻭَﻻ ﺃَﻭﻟٰﺪُﻛُﻢ
ﻋَﻦ ﺫِﻛﺮِ ﺍﻟﻠَّﻪِ ۚ ﻭَﻣَﻦ ﻳَﻔﻌَﻞ
ﺫٰﻟِﻚَ ﻓَﺄُﻭﻟٰﺌِﻚَ ﻫُﻢُ ﺍﻟﺨٰﺴِﺮﻭﻥَ
[9] মুমিনগণ! তোমাদের ধন-সম্পদ ও
সন্তান-সন্ততি যেন তোমাদেরকে
আল্লাহর স্মরণ থেকে গাফেল না করে।
যারা এ কারণে গাফেল হয়, তারাই
তো ক্ষতিগ্রস্ত।
[9] O you who believe! Let not your
properties or your children divert you
from the remembrance of Allâh. And
whosoever does that, then they are the
losers.
[10] ﻭَﺃَﻧﻔِﻘﻮﺍ ﻣِﻦ ﻣﺎ ﺭَﺯَﻗﻨٰﻜُﻢ
ﻣِﻦ ﻗَﺒﻞِ ﺃَﻥ ﻳَﺄﺗِﻰَ ﺃَﺣَﺪَﻛُﻢُ
ﺍﻟﻤَﻮﺕُ ﻓَﻴَﻘﻮﻝَ ﺭَﺏِّ ﻟَﻮﻻ
ﺃَﺧَّﺮﺗَﻨﻰ ﺇِﻟﻰٰ ﺃَﺟَﻞٍ ﻗَﺮﻳﺐٍ
ﻓَﺄَﺻَّﺪَّﻕَ ﻭَﺃَﻛُﻦ ﻣِﻦَ ﺍﻟﺼّٰﻠِﺤﻴﻦَ
[10] আমি তোমাদেরকে যা দিয়েছি,
তা থেকে মৃত্যু আসার আগেই ব্যয় কর।
অন্যথায় সে বলবেঃ হে আমার
পালনকর্তা, আমাকে আরও কিছুকাল
অবকাশ দিলে না কেন? তাহলে আমি
সদকা করতাম এবং সৎকর্মীদের
অন্তর্ভুক্ত হতাম।
[10] And spend (in charity) of that with
which We have provided you, before
death comes to one of you and he says:
“My Lord! If only You would give me
respite for a little while (i.e. return to
the worldly life), then I should give
Sadaqah (i.e. Zakât) of my wealth , and
be among the righteous [i.e. perform
Hajj (pilgrimage to Makkah)] and other
good deeds.
[11] ﻭَﻟَﻦ ﻳُﺆَﺧِّﺮَ ﺍﻟﻠَّﻪُ ﻧَﻔﺴًﺎ ﺇِﺫﺍ
ﺟﺎﺀَ ﺃَﺟَﻠُﻬﺎ ۚ ﻭَﺍﻟﻠَّﻪُ ﺧَﺒﻴﺮٌ ﺑِﻤﺎ
ﺗَﻌﻤَﻠﻮﻥَ
[11] প্রত্যেক ব্যক্তির নির্ধারিত সময়
যখন উপস্থিত হবে, তখন আল্লাহ কাউকে
অবকাশ দেবেন না। তোমরা যা কর,
আল্লাহ সে বিষয়ে খবর রাখেন।
[11] And Allâh grants respite to none
when his appointed time (death) comes.
And Allâh is All-Aware of what you do.
Surah Al Munafiqun Recitation: Sa’ad Al Ghamdi 1. মুনাফিকরা আপনার কাছে এসে বলেঃ আমরা সাক্ষ্য দিচ্ছি যে আপনি নিশ্চয়ই আল্লাহর রসূল। আল্লাহ জানেন যে, আপনি অবশ্যই আল্লাহর রসূল এবং আল্লাহ সাক্ষ্য দিচ্ছেন যে, মুনাফিকরা অবশ্যই মিথ্যাবাদী। 2. তারা তাদের শপথসমূহকে ঢালরূপে ব্যবহার করে। অতঃপর তারা আল্লাহর পথে বাধা সৃষ্টি করে। তারা যা করছে, তা খুবই মন্দ। 3. এটা এজন্য যে, তারা বিশ্বাস করার পর পুনরায় কাফের হয়েছে। ফলে তাদের অন্তরে মোহর মেরে দেয়া হয়েছে। অতএব তারা বুঝে না। 4. আপনি যখন তাদেরকে দেখেন, তখন তাদের দেহাবয়ব আপনার কাছে প্রীতিকর মনে হয়। আর যদি তারা কথা বলে, তবে আপনি তাদের কথা শুনেন। তারা প্রাচীরে ঠেকানো কাঠসদৃশ্য। প্রত্যেক শোরগোলকে তারা নিজেদের বিরুদ্ধে মনে করে। তারাই শত্রু, অতএব তাদের সম্পর্কে সতর্ক হোন। ধ্বংস করুন আল্লাহ তাদেরকে। তারা কোথায় বিভ্রান্ত হচ্ছে? 5. যখন তাদেরকে বলা হয়ঃ তোমরা এস, আল্লাহর রসূল তোমাদের জন্য ক্ষমাপ্রার্থনা করবেন, তখন তারা মাথা ঘুরিয়ে নেয় এবং আপনি তাদেরকে দেখেন যে, তারা অহংকার করে মুখ ফিরিয়ে নেয়। 6. আপনি তাদের জন্যে ক্ষমাপ্রার্থনা করুন অথবা না করুন, উভয়ই সমান। আল্লাহ কখনও তাদেরকে ক্ষমা করবেন না। আল্লাহ পাপাচারী সম্প্রদায়কে পথপ্রদর্শন করেন না। 7. তারাই বলেঃ আল্লাহর রাসূলের সাহচর্যে যারা আছে তাদের জন্যে ব্যয় করো না। পরিণামে তারা আপনা-আপনি সরে যাবে। ভূ ও নভোমন্ডলের ধন- ভান্ডার আল্লাহরই কিন্তু মুনাফিকরা তা বোঝে না। 8. তারাই বলেঃ আমরা যদি মদীনায় প্রত্যাবর্তন করি তবে সেখান থেকে সবল অবশ্যই দুর্বলকে বহিস্কৃত করবে। শক্তি তো আল্লাহ তাঁর রসূল ও মুমিনদেরই কিন্তু মুনাফিকরা তা জানে না। 9. মুমিনগণ! তোমাদের ধন- সম্পদ ও সন্তান-সন্ততি যেন তোমাদেরকে আল্লাহর স্মরণ থেকে গাফেল না করে। যারা এ কারণে গাফেল হয়, তারাই তো ক্ষতিগ্রস্ত। 10. আমি তোমাদেরকে যা দিয়েছি, তা থেকে মৃত্যু আসার আগেই ব্যয় কর। অন্যথায় সে বলবেঃ হে আমার পালনকর্তা, আমাকে আরও কিছুকাল অবকাশ দিলে না কেন? তাহলে আমি সদকা করতাম এবং সৎকর্মীদের অন্তর্ভুক্ত হতাম। 11. প্রত্যেক ব্যক্তির নির্ধারিত সময় যখন উপস্থিত হবে, তখন আল্লাহ কাউকে অবকাশ দেবেন না। তোমরা যা কর, আল্লাহ সে বিষয়ে খবর রাখেন। *********

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s